নানা-তনুশ্রী বিতর্কে শক্তি কাপুরের মন্তব্যে হেসে খুন সাংবাদিকরা

নানা পাটেকর এবং তনুশ্রী দত্ত নিয়ে গুঞ্জনের শেষ নেই। সপ্তাহখানেক আগে নিজে মুখেই নানার বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগে সরব হন বাঙালী অভিনেত্রী। তারপর থেকেই দুজনকে নিয়ে কানাঘুষা চলছে। এই ঘটনা নিয়ে যদিও প্রকাশ্যে মুখ খুলতে চাননি বিগ বি কিংবা আমির খান কেউই। এবার তাদেরই রাস্তায় হাঁটলেন শক্তি কাপুরও। যৌন হেনস্তার প্রসঙ্গে তার কিছুই জানা নেই বলেই দাবি করলেন এই অভিনেতা।

সংবাদ প্রতিদিন পত্রিকার খবরে বলা হয়, বেশ কয়েকদিন ধরেই ভারতের বাইরে ছিলেন শক্তি কাপুর। দেশে ফিরতেই সাংবাদিকরা ঘিরে ধরে তাকে। তনুশ্রী দত্ত ও নানা পাটেকরের যৌন হেনস্তার প্রসঙ্গে প্রশ্ন করা হয় অভিনেতাকে। বিদেশে ছিলেন বলেই, গোটা ঘটনাই তার অজানা সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে প্রথমে এই উত্তরই দেন তিনি। কিছু সাংবাদিকরা তাকে ছেড়ে দেওয়ার পাত্র নন। তিনি না জানলে কী হবে, তনুশ্রী ও নানা প্রসঙ্গটি সাংবাদিকরাই বুঝিয়ে বলেন শক্তি কাপুরকে। এরপরের উত্তরে যদিও হেসে ওঠেন সকলেই। বাঙালি অভিনেত্রীর অভিযোগ অনুযায়ী, যৌন হেনস্তার ঘটনাটি ঘটেছিল ২০০৮ সালে। আজ থেকে প্রায় দশ বছর আগের কথা তুলে ধরে অভিনেতা জানান তিনি সেই সময় ছোট ছিলেন। তাই এ প্রসঙ্গে আর যাই হোক, তার মন্তব্য করা উচিত নয়। শক্তি কাপুরের এমন প্রতিক্রিয়ায় হাসি থামাতে পারেন না কেউই। এভাবেই সুকৌশলেই নানা-তনুশ্রী যৌন হেনস্তা ইস্যুতে নিজেকে সামলান শক্তি।

তনুশ্রীর অভিযোগ, ২০০৮ সালে ‘হর্ন ওকে প্লিজ’ ছবির একটি গানের শুটিং চলাকালীন নানা পাটেকর তার যৌন হেনস্তা করে। এমনকী ভারতের নবনির্মাণ সেনাকে দিয়ে তাকে মারধর করানো হয় বলেও অভিযোগ। এই অভিযোগ সামনে আসার পর থেকেই চলছে কাদা ছোঁড়াছুঁড়ি। তনুশ্রী যখন যৌন হেনস্তার অভিযোগে সরব, তখন নানা সেই দাবি নস্যাৎ করেছেন। অভিনেত্রীর কাছে আইনি নোটিসও পাঠিয়েছেন নানা পাটেকর। তবে এই কঠিন পরিস্থিতিতে বলিউডের অনেকেই যদিও তনুশ্রীর পাশে দাঁড়িয়েছেন।

Add Comment