সালমানকে খুন করতে শুটিং স্পটে অস্ত্রধারী!

হত্যার হুমকি পাওয়ার পর থেকেই বলিউড অভিনেতা সালমান খানের নিরাপত্তায় দেহরক্ষী সবসময় সঙ্গে থাকে। তার পরবর্তী ‘রেস-৩’ ছবির শুটিং চলাকালে মঙ্গলবার অস্ত্র হাতে দুষ্কৃতিকারীরা ঢুকে পড়ে, এর শুটিং চলছিল মুম্বাইয়ের ফিল্ম সিটিতে। পরে শুটিং বন্ধ করে তার বাসায় পৌঁছে দেয় পুলিশ।
পুলিশ জানিয়েছে, সালমান খানের পরবর্তী ছবি ‘রেস-৩’ এর শুটিং চলাবস্থায় কাছাকাছি চলে আসে কয়েকজন অস্ত্রধারী। খবর পেয়ে তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে পুলিশ আসায় এ যাত্রায় কোনো বিপদ ঘটেনি। পুলিশ দেখে তখনই অস্ত্রধারীরা পালিয়ে যায়। অজ্ঞাতনামা এ অস্ত্রধারীদের এখনও খুঁজে পাওয়া সম্ভব হয়নি। এরপর শুটিং সেট বন্ধ রেখে নিরাপদে বাড়ি পৌঁছে দেওয়া হয়েছে সালমানকে।
পুলিশ বলছে, ভারতের গ্যাংস্টার লরেন্স বিষ্ণোইয়ের দলের লোকজনই সালমানকে হত্যা করার চেষ্টা করছে। লরেন্স সাধারণ কোনো গ্যাংস্টার নয়, তার বিরুদ্ধে খুনের চেষ্টা, হুমকি, তোলাবাজি, ছিনতাই, অপহরণসহ মোট ২০টি মামলা চলছে। ১৯৯৮ সালে কৃষ্ণসার হত্যার ঘটনাকে কেন্দ্র করেই লরেন্স এখনও সালমানকে খুনের হুমকি দিচ্ছে বলে জানা যায় মুম্বাই পুলিশের বরাত থেকে।
লরেন্স বিষ্ণোই বলেছিল, ‘সালমানকে যোধপুরেই খুন করা করব। তারপর সে বুঝবে আমাদের আসল পরিচয়। পুলিশ যদি চায় আমি আরও বড় অপরাধ করি, সেটা সালমানকে খুন করেই করব এবং এই যোধপুরেই।’

Add Comment